ঢাকা, শুক্রবার - ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

আবারও ইউক্রেনে ড্রোন হামলা চালিয়েছে রাশিয়া, নিহত ১১

ছবিঃ সংগৃহীত

Share on facebook
Share on whatsapp
Share on twitter
Share on linkedin

আবারও ইউক্রেনের বিভিন্ন এলাকায় ক্ষেপণাস্ত্র ও ড্রোন হামলা চালিয়েছে রাশিয়া। এসব হামলায় ইউক্রেনের ১১ জন নিহত হয়েছে বলে দাবি করেছে দেশটির জরুরি সেবা বিভাগ।

বৃহস্পতিবার (২৬ জানুয়ারি) নানা শহরে এসব হামলা চালানো হয়েছে বলে কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আলজাজিরার প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এসব হামলায় আহত হয়েছেন আরও বেশ কয়েকজন। কয়েকমাস ধরে দ্বিধা-দ্বন্দ্ব ও অনিশ্চয়তার পর রুশ আক্রমণ মোকাবিলায় ইউক্রেনকে সহায়তা করার জন্য যুক্তরাষ্ট্র ও জার্মানি ভারী ট্যাংক পাঠানোর সিদ্ধান্ত নেয় বুধবার। এর একদিন পরই এসব হামলা চালায় রুশ বাহিনী। যদিও এর আগেই রাশিয়া এসব অস্ত্র পাঠানোর বিষয়ে সতর্ক করে বলেছিল, ইউক্রেনকে অস্ত্র দিলে যুদ্ধ পরিস্থিতি ভয়ঙ্কর বিপজ্জনক হবে।

আরও পড়ুন  নির্বাচন বানচাল করার ষড়যন্ত্র করছে বিএনপি: ওবায়দুল কাদের

আলজাজিরা জানায়, জার্মানি ও যুক্তরাষ্ট্র কিয়েভের জন্য ভারী ট্যাংকের প্রতিশ্রুতি দেওয়ার একদিন পর, বৃহস্পতিবার ইউক্রেনের জ্বালানি অবকাঠামো লক্ষ্য করে হওয়া রুশ হামলায় ১১ জন নিহত হয়েছেন।

ইউক্রেনের ১১ অঞ্চলে হামলায় চালানো হয়েছে। এসব হামলায় ৩৫টি ভবন ধসে পড়েছে।

ইউক্রেনের সেনাবাহিনী জানিয়েছে, তাদের বাহিনী রাশিয়ার ছোঁড়া ৫৫টি ক্ষেপণাস্ত্রের মধ্যে ৪৭টি ধ্বংস করেছে। বৃহস্পতিবার মধ্যরাতে ইরানের তৈরি ২৪টি ড্রোন পাঠায় রাশিয়া। এর সবগুলোই ধ্বংস করা হয়েছে। ওই ২৪টি ড্রোনের মধ্যে ১৫টি পাঠানো হয়েছিল রাজধানী কিয়েভ ও আশপাশের অঞ্চলে।

আরও পড়ুন  ব্রাজিলের প্রেসিডেনশিয়াল প্যালেসে হামলা

মূলত গত বছরের অক্টোবর থেকে ড্রোন ব্যবহার করে ইউক্রেনের বিদ্যুৎ কেন্দ্রসহ গুরুত্বপূর্ণ অবকাঠামো লক্ষ্য করে হামলা চালিয়ে আসছে রাশিয়া। আর এসব হামলায় তীব্র শীতের মধ্যে বিদ্যুৎ ছাড়া দুর্বিষহ সময় কাটাতে হয়েছে সাধারণ ইউক্রেনীয়দের। বৃহস্পতিবারের হামলাও বিদ্যুৎ কেন্দ্র লক্ষ্য করে চালানো হয়েছে।

ওডেসার স্থানীয় সরকার জানিয়েছে, নতুন হামলায় দুটি বিদ্যুৎ অবকাঠামো ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এ ছাড়া ভিনিৎসিয়ায় ক্ষেপণাস্ত্র আঘাত হানার খবর পাওয়া গেছে।

আরও পড়ুন  মার্কিনীদের অবিলম্বে রাশিয়া ছাড়ার আহ্বান

এর আগে বুধবার ইউক্রেনের জন্য ভারী ট্যাংক সরবরাহ করার পরিকল্পনা ঘোষণা করে যুক্তরাষ্ট্র ও জার্মানি। ওই দিন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন বলেন, তারা ৩১টি অত্যন্ত শক্তিশালী ও অত্যাধুনিক আবরাম ট্যাংক ইউক্রেনকে দেবেন। জার্মানির চ্যান্সেলর ওলাফ শলৎস জানান, জার্মানি ইউক্রেনকে ১৪টি লিওপার্ড ২ ট্যাংক দেবে।

ট্যাগঃ