ঢাকা, শনিবার - ২রা মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

পটিয়ায় গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে গ্রেপ্তার ১

ছবিঃ সংগৃহীত

Share on facebook
Share on whatsapp
Share on twitter
Share on linkedin

পটিয়ায় যৌতুকের জন্য বেবী আকতার (৩৬) নামের এক গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের পর একজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

জান যায়, ১৪ বছর আগে পটিয়া পৌরসদরের ৮ নং ওয়ার্ডস্থ লাল মিয়া মাস্টারের বাড়ির মৃত জাফর আহমদের পুত্র ওয়াহিদুল আলমের সাথে উপজেলার হাইদগাঁও ইউনিয়নের পূর্ব হাইদগাঁওস্থ আমির বাড়ির বাসিন্দা লোকমান হাকিমের কন্যা বেবী আকতারের বিয়ে হয়। গত ৬ ফেব্রুয়ারি দুপুরে বেবী আকতারকে পিটিয়ে গুরুতর জখম করে শ্বশুর বাড়ির লোকজন। খবর পেয়ে গৃহবধূর পিতার পরিবারের সদ্যসরা গুরুত্বর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে পটিয়া হাসপাতালে নিয়ে যায়। এরপর প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে বাড়িতে নিয়ে আসলেও কয়েক দফায় তাকে পর পর তিনদিন হাসপাতালে নেয়া হয়।

আরও পড়ুন  চকরিয়া-পেকুয়াকে বন্যামুক্ত রাখতে নদীর দু’পাড়ে বাঁধ নির্মাণ করা হবে: ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী

গত ১১ ফেব্রুয়ারি তার অবস্থা গুরুতর হলে তাকে পুনরায় পটিয়া হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখান থেকে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করা হলে সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত সোমবার রাত ৩টার দিকে তার মৃত্যু হয়।

এ ঘটনায় ওই গৃহবধূর ছোট ভাই খোরশেদ আলম বাদি হয়ে গত মঙ্গলবার রাতে পটিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

আরও পড়ুন  বোয়ালখালী থেকে উদ্ধার শিবগঞ্জের নিখোঁজ গৃহবধূ

মামলায় আসামিরা হলেন- স্বামী ওয়াহিদুল আলম (৪২), শাশুড়ি দিলু আরা বেগম (৫৯), দেবর মোহাম্মদ রুবেল (২৬), মোহাম্মদ সোহেল (৩১) ও ননদ পুষ্পা আকতার (২১)।

মামলা দায়ের করার পর মোহাম্মদ সোহেলকে গ্রেপ্তার করেছে পটিয়া থানা পুলিশ।

পটিয়া থানার ওসি মোহাম্মদ রেজাউল করিম মজুমদার জানান, এ ঘটনায় মামলা দায়েরের পর পুলিশ তাৎক্ষণিক অভিযান চালিয়ে একজনকে গ্রেপ্তার করে। ঘটনার পর অন্যরা এলাকা ছেড়ে পালিয়েছে। তাদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

আরও পড়ুন  কক্সবাজার 'সুগন্ধা পয়েন্ট'র নাম এখন ‘বঙ্গবন্ধু বিচ’

ট্যাগঃ